• ঢাকা
  • রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

Advertise your products here

  1. সারাদেশ

বাকেরগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জনপ্রিয়তার শীর্ষে বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা


দৈনিক পুনরুত্থান ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৬:২২ পিএম
বাকেরগঞ্জ_উপজেলা_পরিষদ_নির্বাচনে_জনপ্রিয়তার_শীর্ষে _বিশ্বাস_মুতিউর_রহমান_বাদশা
ফাইল ফুটেজ

জাতীয় উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে বাকেরগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান পদে জনপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছেন বিশিষ্ট সমাজসেবক, শিক্ষানুরাগী, আইনজীবি, সরকারি বিএম কলেজ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক তুখোর মেধাবী ছাত্র, কর্মীবান্ধব ও জন বান্ধব নেতা হিসেবে পরিচিত,বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় আওয়ামী যুবলীগের সিনিয়র যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার একান্ত বিশ্বস্ত যুব সমাজের আইকন বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা।

 

গত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন-২০২৪ এর হেভিওয়েট আওয়ামী লীগের একজন  দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী ছিলেন। কেন্দ্রীয় এ যুবলীগ নেতা দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন বঞ্চিত হলেও তিনি দলের প্রতি আনুগত্য প্রকাশ করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার মনোনীত প্রার্থী মেজর জেনারেল (অবঃ) আলহাজ্ব আব্দুল হাফিজ মল্লিকের পক্ষে কাজ করে বিভিন্ন উঠান বৈঠকে তার অগ্নিঝরা বক্তৃতা প্রদানের কারণে আকৃষ্ট হয়ে বিভিন্ন পেশার শ্রেণীর মানুষ একাত্মতা পোষণ করে গত ৭ জানুয়ারীর দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিজয় ছিনিয়ে নিয়ে আনেন।

 

আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে তিনি একজন প্রার্থী। কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা এবার অন্যান্য সকল প্রার্থীদের চেয়েও মাঠ পর্যায়ে জনপ্রিয়তায় শীর্ষে এগিয়ে। জনপ্রিয়তায় শীর্ষে থেকেও বিজয় নিশ্চিত করতে উপজেলা আওয়ামী লীগের সকল সহযোগী অঙ্গসংগঠন ও ভোটারদের সাথে প্রতিদিনই শুভেচ্ছা বিনিময়,মতবিনিময় ও দোয়া চেয়ে ব্যাপক প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছেন।  অত্র উপজেলার ১৪ ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার বিভিন্ন এলাকায়,বিভিন্ন হাটবাজারে, বিভিন্ন স্কুল-কলেজ ও মাদ্রাসায় সরে-জমিনে ঘুরে দেখা যায় যে, বর্তমানে বাকেরগঞ্জ উপজেলার প্রতিটি ভোটারদের মুখে,মুখে কেন্দ্রীয় এই নেতার নাম যা চোখে দেখার মত।

 

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে কেন্দ্রীয় এই যুবলীগ নেতা বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা বলেন, আমি জনপ্রতিনিধি না হয়েও অবহেলিত, সুবিধাবঞ্চিত ও উন্নয়ন বঞ্চিত বাকেরগঞ্জ উপজেলার ১৪ ইউনিয়ন এবং একটি পৌরসভার সকল ওয়ার্ডের, সাধারণ অসহায়, খেটে খাওয়া হত-দরিদ্র মানুষের সুখে-দুঃখে আমার সাধ্য মতে নিজস্ব অর্থায়ন দিয়ে তাদের পাশে দাঁড়ানোর পাশাপাশি উপজেলার যেকোনো মানুষের সর্বক্ষেত্রে সহযোগিতা ইতিমধ্যে করেছি এবং ভবিষ্যতেও আমার এই সহযোগিতার দ্বার অব্যাহত থাকবে।

 

স্মার্ট মেধাবী এই যুবলীগ নেতা বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা ব্যাপক জনপ্রিয় হওয়ার কারণ তিনি আওয়ামী লীগ পরিবারের সন্তান। ব্যাপক রাজনৈতিক পরিচিতি। সরকারি বিএম কলেজের ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক তুখোর মেধাবী ছাত্রলীগ নেতা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার একান্ত বিশ্বস্ত ও আস্থা ভাজন হওয়ার কারণে তিনি বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় আওয়ামী যুবলীগের সিনিয়র যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হিসেবে সততা ও দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালন করে চলছেন।

 

এছাড়া ও তিনি একাধিক সামাজিক সেবামূলক কার্যক্রমের জড়িত। তিনি ছাত্র জীবন থেকেই নিজস্ব অর্থায়নে পর-উপকারী ছিলেন। বর্তমানেও উপজেলা আওয়ামী লীগ, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগসহ তিনি সকল ইউনিয়নের সকলের সঙ্গে সু-সম্পর্ক বজায় রেখে সর্বপ্রকার সেবামূলক কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছেন। যেমন তার ব্যক্তিগত অর্থায়নে কাঁচা রাস্তা সংস্কার, করোনা কালে খাদ্য ও সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণসহ প্রতিবছরের ন্যায় পবিত্র ঈদে অসহায়দের সহযোগীতা এবং দূর্গা পূজায় উপজেলার প্রতিটি মন্দির পরিদর্শন ও আর্থিক সহায়তা দিয়েছেন তিনি।

 

শুধু তাই নয়, মেধাবী ও দারিদ্র্য শিক্ষার্থীদের শিক্ষার গুনগত মানোন্নয়নে সদা অগ্রসর তিনি। বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা  বলেন, বাংলাদেশের স্থপতি, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের যোগ্য কন্যা, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সফল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। দেশরত্ন শেখ হাসিনার দিক নির্দেশনা মেনে সব সময় উপজেলার সাধারণ মানুষের পাশে থেকে আওয়ামী সরকারের সকল সেবামূলক কাজে অংশগ্রহণ করে যাচ্ছি।

 

তিনি আরোও বলেন,স্মার্ট বাকেরগঞ্জ এবং মাননীয় সংসদ সদস্য ও উপজেলা আওয়ামী লীগের অভিভাবক জননেতা মেজর জেনারেল (অবঃ) আলহাজ্ব আবদুল হাফিজ মল্লিক মহোদয়ের হাতকে শক্তিশালী করতে তিনি বদ্ধপরিকর। আমার বিশ্বাস আসন্ন নির্বাচনে জনগণ ব্যালট বিপ্লবের মাধ্যমে আমাকে  চেয়ারম্যান নির্বাচিত করবেন। আর আমি নির্বাচিত হয়ে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অঙ্গীকার গ্রামকে শহরে রূপান্তরিত করবো এবং সকল প্রকার প্রচেষ্টা বাস্তবায়নে কাজ করবো।

 

যেমন গ্রামে উন্নয়নের ছোয়া পৌঁছে দিয়ে দুঃখ, দুর্দশা, ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত সমাজ গঠনে ভূমিকা রাখবো। আমি কখনোই নিজের উন্নয়নে নয় বরং বাকেরগঞ্জ উপজেলা বাসীর উন্নয়নে কাজ করবো।অতীত, বর্তমানে যেভাবে সকলের বিপদে ঝাঁপিয়ে পড়ে সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছিলাম। ঠিক তেমনি ভাবে মানুষের পাশে থাকবো। সাধারণ মানুষের সম্ভাবনাময় স্বপ্নকে বাস্তবে রুপ দেয়ার জন্যই তৃণমূলের মানুষের দোয়া ও ব্যাপক সমর্থন আদায় করে যাচ্ছেন।

 

এছাড়াও আমার মূল লক্ষ্যই হচ্ছে জনগণের ঘরে ঘরে নাগরিক সেবা পৌঁছে দেওয়া।স্মার্ট বাংলাদেশে,স্মার্ট হবে বাকেরগঞ্জ উপজেলা।

দৈনিক পুনরুত্থান / নজরুল ইসলাম আলীম, বাকেরগঞ্জ

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন